বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির ৪৭তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী ও বসন্ত উৎসবে

বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির ৪৭তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী ও বসন্ত উৎসবে

করোনা আমাদেরকে সামাজিক দূরত্ব করে দিয়েছিলো : এডিসি অসিম চন্দ্র বনিক
বসন্তের মাসেই ভাষার জন্যে রক্ত দিতে হয়েছিলো : মেয়র জিল্লুর রহমান জুয়েল

চাঁদপুরে বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির ৪৭তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী ও বসন্ত উৎসব উদযাপিত হয়েছে। এ উপলক্ষে আলোচনা সভা,  কেক কাটা ও মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পরিবেশিত হয়। গতকাল ১৮ ফেব্রæয়ারী বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় জেলা  শিল্পকলা একাডেমি মিলনায়তনে এ উৎসবের আয়োজন করা হয়।
বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির ৪৭তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী ও বসন্ত উৎসবে


আলোচনা পর্বে প্রধান অতিথি ছিলেন চাঁদপুরের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) অসিম চন্দ্র বনিক। তিনি বলেন,  আজকের এ অনুষ্ঠানের প্রথমেই কবির কবিতাটি মনে পড়ে, তা হলো- ফুল ফুটুক আর না-ই ফুটুক আজ বসন্ত। করোনায় আমাদেরকে সামাজিক দূরত্ব করে দিয়েছিলো। এ পরিবেশেও  বসন্ত উৎসব আমাদের মনে প্রানে সঞ্চারিত হয়। হাজার বছরের বাঙালি সংস্কৃতির মাধ্যমে উন্নত জায়গায় আমরা অগ্রসর হচ্ছি।

অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক আরো বলেন, এ ধরনের অনুষ্ঠান বিভিন্ন ধর্মের মানুষ একত্রিত হওয়ার একটি প্লাটফর্ম তৈরি করে। চিন্তা-চেতনা পার্থক্য থাকা সত্তে¡ও এ ধরনের অনুষ্ঠান আমাদের একত্রিত করে। আমাদের ভালো লাগার এবং ভালো থাকার অনুপ্রেরনা জোগায়। সা¤প্রদায়িক অপশক্তি ও জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে বসন্ত বরণ অনুষ্ঠান অপরিহার্য শক্তি। আমি আশা করি, এ ধরনের অনুষ্ঠানের মাধ্যমে আমাদের শক্তি আরো বৃদ্ধি পাবে।

বিশেষ অতিথি ছিলেন চাঁদপুর পৌরসভার মেয়র অ্যাড. জিল্লুর রহমান জুয়েল। তিনি বলেন, বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমি তৈরি করা হয়েছিলো তার লক্ষ্য ছিলো বাংলা সংস্কৃতিকে লালন করার জন্যে। আরো লক্ষ্য ছিলো মনস্তাত্তি¡ক মনা গড়ে তোলার জন্যে। এ বসন্তের মাসেই ভাষার জন্যে রক্ত দিতে হয়েছিলো। বসন্ত আমাদের সব প্রেরনার উৎস।

বিশেষ অতিথি হিসেবে আরো বক্তব্য রাখেন জেলা শিল্পকলা একাডেমির সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও জেলা স্কাউটের সভাপতি অজয় ভৌমিক, চাঁদপুর প্রেসক্লাবের সভাপতি ইকবাল হোসেন পাটওয়ারী। 
জেলা কালচারাল অফিসার আয়াজ মাবুদের সভাপতিত্বে ও সাংবাদিক এমআর ইসলাম বাবুর সঞ্চালনায় শুভেচ্ছা  বক্তব্য রাখেন জেলা শিল্পকলা একাডেমী'র কার্যনির্বাহী পরিষদের সদস্য শহীদ পাটোয়ারী, রূপালী চম্পক ও অ্যাড. বদিউজ্জামান কিরন, সম্মিলিতি সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি তপন সরকার, চতুরঙ্গ সাংস্কৃতিক সংগঠনের মহাসচিব হারুন আল রশিদ। আলোচনা সভার পূর্বে ফুল ও উত্তরীয় পরিয়ে আমন্ত্রিত অতিথিদেরকে বরণ করা হয়।

সংক্ষিপ্ত আলোচনা শেষে বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির ৪৭তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে আমন্ত্রিত অতিথিবৃন্দরা কেক কাটেন। এরপরই চাঁদপুরের বিভিন্ন সাংস্কৃতিক সংগঠনের পরিবেশনায় মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পরিবেশিত হয়।

প্রসঙ্গত,  প্রধান অতিথির বক্তব্যের পূর্বে সাংস্কৃতিক চর্চা কেন্দ্রের সদস্য সচিব মরহুম ইয়াহিয়া কিরণের রূহের মাগফেরাত কামনায় এক মিনিট দাঁড়িয়ে নিরবতা পালন করা হয়।

Newer Posts Older Posts

Related posts