উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে ১৪ ফেব্রুয়ারি নৌকাকে বিজয়ী করতে হবে

উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে ১৪ ফেব্রুয়ারি নৌকাকে বিজয়ী করতে হবে

 আগামী ১৪ ফেব্রুয়ারি নির্বাচনকে সামনে রেখে বিশাল শো-ডাউন আর মিছিলে মিছিলে নেতা-কর্মীদের ঢলের মধ্যে দিয়ে ফরিদগঞ্জ পৌরসভা নির্বাচনের শেষ পথসভাটি শেষ করলো আওয়ামী লীগ। গতকাল ১১ ফেব্রুয়ারি বৃহস্পতিবার বিকেলে ফরিদগঞ্জ পৌরসভা মাঠে পথসভায় নির্বাচন পরিচালনা কমিটির সভাপতি ও মেয়র প্রার্থী উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি যুদ্ধাহত বীর মুক্তিযোদ্ধা  আবুল খায়ের পাটওয়ারীর  সভাপতিত্বে ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও নিবার্চন পরিচালনা কমিটির  সদস্য সচিব আবু সাহেদ সরকারের  পরিচালনায় পথসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগের জাতীয় পরিষদ সদস্য, চাঁদপুর জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি ও সাবেক স্থানীয় সাংসদ ড. মোহাম্মদ মোহাম্মদ  শামছুল হক ভূঁইয়া। 

উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে ১৪ ফেব্রুয়ারি নৌকাকে বিজয়ী করতে হবে


তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশের উন্নয়নে ও মানুষের ভাগ্য পরিবর্তনে কাজ করছেন। তিনি ভালোবেসে এবং মুক্তিযুদ্ধের বীর সেনানী যুদ্ধাহত বীরমুক্তিযোদ্ধা আবুল খায়ের পাটওয়ারীকে ফরিদগঞ্জ পৌরসভা নির্বাচনে মেয়র পদে নৌকা প্রতীকের মেয়র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন দিয়েছেন। যেহেতু প্রধানমন্ত্রী এ মহান ব্যক্তিকে মনোনয়ন দিয়ে সম্মানিত করেছেন, তাই আমরা সকলে জননেত্রীর হাতকে শক্তিশালী করতে এবং উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে আগামী ১৪ ফেব্রæয়ারি নৌকা মার্কার বিজয় নিশ্চিত করার লক্ষে কাজ করে যাবো। আমাদের প্রার্থী আবুল খায়ের পাটওয়ারী আমাদেরকে পরাধীনতার শৃঙ্খল থেকে মুক্ত করতে ১৯৭১ সালে অগ্রনী ভূমিকা পালন করেছেন। তিনি মানুষের জন্য কাজ করেন। আবুল খায়ের পাটওয়ারী মানে উন্নয়নের অগ্রগতি। বিগত ৫ বছরে পৌর এলাকায় যে পরিমাণ কাজ হয়েছে, বাকি কাজগুলো সমাপ্ত করতেই আবুল খায়ের পাটওয়ারীকে মেয়র হিসেবে নির্বাচিত করতে হবে।  তাই আবারো বলছি, এ উন্নয়ন ধরে রাখতে আপনারা আবারো নৌকায় ভোট দেবেন। তাই পৌরবাসীর ভাগ্য পরিবর্তনে এবং জননেত্রী শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করতে নৌকার বিজয় নিশ্চিত করুন।

তিনি আরো বলেন, ফরিদগঞ্জ পৌরসভায় নৌকাকে  বিজয়ী করার লক্ষে জেলা, উপজেলা ও পৌর আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ, জনপ্রতিনিধিরা উপস্থিত হয়ে প্রমান দিয়েছেন সকলে এক এবং অভিন্ন। পরিবারের সকলে যখন ঐক্যবদ্ধ থাকে, তখন ওই পরিবারের সফলতা নিয়ে আসা কোনো ব্যাপার নয় এবং সফলতা ঘরে আসবেই। 

জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ডা: জে আর ওয়াদুদ টিপু তার বক্তব্যে বলেন, আমরা সকল ভোদভেদ ভুলে গিয়ে ঐক্যবদ্ধ হয়ে মাঠে রয়েছি। আগামী ১৪ ফেব্রæয়ারি রোববার সারাদিন মাঠে থেকে বিজয়ের মালা নিয়েই মাঠ ছাড়বো।

পথসভায় আরো বক্তব্য রাখেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবু নঈম পাটওয়ারী দুলাল, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. জহিরুল ইসলাম, স্বাস্থ্য ও জনসংখ্যা বিষয়ক সম্পাদক ডা: হারুনুর রশিদ সাগর, উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান অ্যাড. জাহিদুল ইসলাম রোমান, হাজীগঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যান গাজী মইনুদ্দিন, ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক আবুল কাশেম , বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক রফিকুল আমিন কাজল, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী গিয়াস উদ্দিন বাবুল পাটওয়ারী, চাঁদপুর পৌরসভার মেয়র জিল্লুর রহমান জুয়েল, ফরিদগঞ্জ পৌরসভার মেয়র মাহফুজুল হক, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের কমান্ডার শহিদুল্যাহ তপদার,  জেলা পরিষদ সদস্য মশিউর রহমান মিটু, সাইফুল ইসলাম রিপন, উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি লোকমান তালুকদার, যুগ্মসাধারণ সম্পাদক আলমগীর হোসেন, ওয়াহিদুর রহমান রানা, বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক কামাল পাঠান, সদস্য কামাল মিয়াজী , পৌর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মজিবুর রহমান, উপজেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি অ্যাড. নাজমুন নাহার অনি, যুবলীগের ভারপ্রাপ্ত আহŸায়ক হাজী সফিকুর রহমান, যুব মহিলা লীগের সভাপতি সুলতানা রাজিয়া দীপু, উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি মাহবুব আলম সোহাগ, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সাধারণ সম্পাদক কাউছারুল আলম কামরুল। 

এ সময় উপস্থিত ছিলেন বঙ্গবন্ধু গবেষণা পরিষদের চাঁদপুর জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক  কামরুল ইসলাম সউদ, বিআরডিবির চেয়ারম্যান আব্দুস সালাম আজাদ জুয়েল, যুবলীগ নেতা কামরুজ্জামান সবুজ, আকবর হোসেন মনির, উপজেলা ছাত্রলীগের যুগ্মসম্পাদক রাজীব মজুমদার, রবিউল হোসেন, পৌর যুবলীগের আহŸায়ক সাজ্জাদ হোসেন টিটু, সিনিয়র যুগ্ম আহŸায়ক এসএম সোহেল রানা, পৌর ছাত্রলীগের সভাপতি আলমগীর পাটওয়ারী প্রমুখ। 


Newer Posts Older Posts

Related posts